হিরো আলমকে সিনেমা থেকে সরিয়ে দিলেন অনন্ত জলিল

আ'লোচিত হিরো আলমকে নিজের সিনেমা থেকে সরিয়ে দিলেন চিত্রনায়ক অনন্ত জলিল। একই সঙ্গে ঘোষণা দিলেন চুক্তির প্রথম পঞ্চাশ হাজার টাকাও নেবেন না তিনি। আজ হিরো আলমকে ফোন করে এমন সিদ্ধান্তের কথা জানান অনন্ত জলিল। ফেসবুকে নিজের পেইজেও এ বিষয়ে বিস্তারিত স্ট্যাটাস দেন তিনি। পাঠকের জন্য স্ট্যাটাসটি হুবহু তুলে ধ'রা হলো-

আমি হিরো আলমকে নিয়ে কোনো সিনেমা বানাবো না এবং পঞ্চাশ হাজার টাকা সাইনিং মানি ফেরত নিব না!!

সিংহভাগ বিনোদন সাংবাদিকরা এবং চলচ্চিত্র পরিবারের সকল গুণীজনরা হিরো আলমকে নিয়ে সিনেমা না বানানোর জন্য আ'পত্তি জানাচ্ছেন। এবং রিসেন্টলি তার কিছু অশ্লীল ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে সকলেই আবারো আমাকে নিষেধ করছেন, তাকে নিয়ে সিনেমা না বানানোর জন্য।

সব সময় আমি বিব্রত হচ্ছি, হিরো আলমের এসব বিতর্কিত বিষয়গুলোর জন্য। দীর্ঘদিন যাবত আমি চলচ্চিত্র অঙ্গনে সম্মানের সহিত কাজ করে আসছি, চলচ্চিত্রের প্রতিটি সংগঠনের সাথে ভালো স'ম্পর্ক আছে, প্রতিটি সংগঠনই আমাকে সম্মানের চোখে দেখে। তাই এই সম্মান রক্ষার্থে, বিতর্কিত কাউকে নিয়ে আমি সিনেমা বানাতে চাই না।

চলচ্চিত্রের কোনো সংগঠনই চাচ্ছে না যে আমি হিরো আলমকে নিয়ে সিনেমা বানাই। চলচ্চিত্রের প্রত্যেকটি সংগঠনের সম্মানার্থে আমিও চাই না বিতর্কিত কাউকে নিয়ে সিনেমা বানাতে। আরেকটি কারণ, উল্লেখ না করলেই নয়। কিছুদিন আগে আমি নিজ উদ্যোগে জায়েদ খানের সঙ্গে হিরো আলমকে মিল করিয়ে দিয়েছিলাম এবং প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁওয়ে তাদের নিয়ে একসঙ্গে লাঞ্চ করেছিলাম। মীমাংসা করে দেয়ার পরও একই বিষয় নিয়ে বিভিন্ন জায়গায় হিরো আলম মন্তব্য করছেন যা মোটেও কাম্য নয়।

আমা'র এত ব্যস্ততার মাঝেও আমি তাকে পাশে বসিয়েছিলাম, সে আমা'র ম'র্যাদা বোঝে নাই। আমা'র ম'র্যাদা যেহেতু বোঝে নাই, তাই আমি চাই না ভবিষ্যতে তার দ্বারা আমা'র ম'র্যাদা ক্ষুণ্ণ হোক।

আমি চাচ্ছিলাম, তার পাশে দাঁড়িয়ে তাকে সহযোগিতা করার, যাতে করে তার উপকার হয়।
এ ধরনের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য মানুষের সঙ্গে আমা'র কাজ করা সম্ভব না। তার এই চারিত্রিক বৈশিষ্ট্যের কারণে আমি আর তাকে নিয়ে সিনেমা বানাব না। পঞ্চাশ হাজার টাকা সাইনিং মানি যেটি দিয়েছি সেটি আমি চাইছি না, সেটি তাকে আমি দিয়ে দিলাম।

Back to top button