স্ত্রী'র গো'পন বিয়ে, ১৫ দিন পর মা'রা গেলেন স্বামী

রাজবাড়ীতে ইউপি সদস্য মোশারফ হোসোনকে তালাক না দিয়েই স্ত্রী' যুঁথী ইস'লাম (২৬) গো'পনে বিয়ে করেছেন বলে অ'ভিযোগ উঠেছে।এতদিন বিষয়টি সবার অজানা ছিল। যুঁথীর দ্বিতীয় বিয়ের ১৫ দিন পর তার প্রথম স্বামী মোশারফের মৃ'ত্যু হয়। এ মৃ'ত্যু ঘিরে এখন মোশারফের পরিবারে দানা বেঁধেছে স'ন্দেহ। শনিবার সন্ধ্যায় দ্বিতীয় স্বামী আরিফ শেখ (২৯) যুঁথীর সঙ্গে দেখা করতে মোশারফের বাড়ি সদর উপজে'লার দাদশী ইউনিয়নের সিংগা গ্রামে যান। সেখানে গ্রামবাসীর স'ন্দেহ হলে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করেন। এক পর্যায় চাঞ্চল্যকর এ তথ্য বের হয়ে আসে।

গ্রামবাসী ও পরিবারের সদস্যরা তাদের আ'ট'ক রেখে ইউপি চেয়ারম্যান ও সদর থা'নায় খবর দেয়। এ সময় উপস্থিত সবার সামনে আরিফ ও যুঁথী জানান, তারা আ'দালতের মাধ্যমে বিয়ে করেছেন চলতি বছরের ২২ ফেব্রুয়ারি। আর মোশারফ মেম্বর মা'রা যান একই বছরের ১৪ মা'র্চ।

এ বিষয়ে মোশারফের ভাই নজরুল ইস'লাম জানান, তার ভাই সুস্থ ছিলেন। হঠাৎ করে কেন মা'রা গেলেন? তা বুঝতে পারছিলেন না। তখন ভাবির কথা বিশ্বা'স করেছিলেন। এখন স'ন্দেহ হচ্ছে তার ভাইকে কৌশলে হ'ত্যা করা হয়েছে। বোন আলেয়া জামান জানান, যে নারী স্বামী ও মাছুম দুটি শি'শু রেখে গো'পনে বিয়ে করতে পারেন, তিনি সবই করতে পারেন। কী'ভাবে দ্বিতীয় বিয়ে করে তার প্রথম স্বামীর সঙ্গে সংসার চালিয়ে যাচ্ছিলেন? কয়েকদিন পরে তার ভাইয়ের মৃ'ত্যু। এ মৃ'ত্যু মেনে নেওয়া যায় না।

দাদশী ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়েরম্যান দেলোয়ার শেখ জানান, খবর পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে পরিষদের গ্রাম পু'লিশ পাঠিয়েছিলেন অ'প্রীতিকর ঘটনা এড়ানোর জন্য। এ ঘটনায় মৃ'ত মোশারফের ভাই নজরুল ইস'লাম বাদী হয়ে সদর থা'নায় একটি অ'ভিযোগ দায়ের করেছেন। অ'ভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে পু'লিশ আরিফ ও যুঁথীকে আ'ট'ক করে সদর থা'নায় নিয়ে গেছে।

Back to top button