সবকিছু লিভিং রুমে থাকে না : পরীমণি

চিত্রনায়িকা বিদ্যা সিনহা মিম, অ'ভিনেতা শরিফুল রাজ ও নির্মাতা রায়হান রাফীকে নিয়ে ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দেন ঢাকাই সিনেমা'র প্রতিবাদী নায়িকা পরীমণি। তার এক স্ট্যাটাসেই তোলপাড় সোশ্যাল মিডিয়া। কমেন্ট বক্সে নেটিজেনদের অনেকেই জানতে চান ‘কী' হয়েছে?’

মো. নাজমুল ইস'লাম নামে একজন মন্তব্য করেন, যাই হোক! সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ধরনের স্ট্যাটাস দেখায় আম'রা বিব্রত। আপনার এটি মুছে ফেলা উচিত। আমাদের শিল্পী, সংস্কৃতি ও সম্মান রক্ষা করতে হবে। আপনি একজন বুদ্ধিমান মেয়ে, যে সবসময় ভালো কাজের সঙ্গে পার্থক্য করে। আশা করি, আপনি আমা'র চিন্তার সংবেদনশীলতা বুঝতে পারবেন। বাচ্চার জন্য ভালোবাসা।

তার সেই মন্তব্যের জবাবে পরীমণি লিখেছেন, ভাইয়া সবকিছু কখনও কখনও লিভিং রুমে থাকে না, সরি।প্রসঙ্গত, বিয়ের পর থেকেই তারকা দম্পতি রাজ-পরীর ভালোবাসার নমুনা দেখেছে নেটিজেনরা। বেশ সুখেই কাটছিল তাদের সংসার। হঠাৎ চিত্রনায়িকা বিদ্যা সিনহা মিমকে রাজের সঙ্গে জড়িয়ে স্ট্যাটাস দেন পরীমণি।

মিমকে উদ্দেশ্য করে তিনি লেখেন, নিজের জামাইকে নিয়ে সন্তুষ্ট থাকা উচিত ছিল। ইতোমধ্যে দুই নায়িকা নিজেদের অবস্থান থেকে বিষয়টি তুলে ধরেছেন।

মিমের ভাষ্যমতে, ‘পরাণ’ ও ‘দামাল’ সিনেমা'র আকাশছোঁয়া সাফল্যে একটা পক্ষ তার পথচলায় ঈর্ষান্বিত হয়ে তাকে থামিয়ে দিতে, তাকে জড়িয়ে নানা ধরনের কুৎসা রটানোর চেষ্টা চালাচ্ছে। তাকে নিয়ে ভিত্তিহীন খবর ছড়ানোর চেষ্টা করলে প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হবেন বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন।

এদিকে পরীর ভাষ্য, তিনি কখনও মিমকে হিং'সা করেননি। বরং তিনি চাইতেন, রাজ-মিম জুটিকে নিয়ে আরও সিনেমা নির্মাণ হোক। রাজ্যের মা নিজেই এই জুটিকে নিয়ে সিনেমা বানাতে পরিচালকদের অনুরোধ জানিয়েছেন। প্রমাণস্বরূপ মিমের সঙ্গে আলাপের একটি স্ক্রিনশট ফাঁ'স করেছেন পরীমণি।

Back to top button